তারাকান্দায় পরিত্যক্ত টয়লেটের ট্যাংক থেকে পলিটেকনিক ছাত্রের লাশ উদ্ধার

19

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের তারাকান্দায় নিখোঁজের ৬ দিন পর পরিত্যক্ত টয়লেটের ট্যাংক থেকে শাহিনুর আলম ওরফে ইকবাল (১৯) নামে এক পলিটেকনিক শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে উপজেলার পলাশকান্দা গ্রামের একটি পরিত্যক্ত টয়লেটের ট্যাংক থেকে নিখোঁজ ছাত্রের লাশ উদ্ধার করা হয়।


নিহত শাহিনুর আলম ওরফে ইকবাল উপজেলার কামারিয়া ইউনিয়নের পলাশকান্দা গ্রামের আবদুর রউফের ছেলে। সে ময়মনসিংহ রুমডো পলিটেকনিকেল ইনস্টিটিউটে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের নিয়মিত শিক্ষার্থী ছিল।


বিষয়টি নিশ্চিত করে তারাকান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) আবুল খায়ের জানান, গত ৩১ মে মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে খাবার খেয়ে চা খাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হাবার পর থেকেই নিখোঁজ ছিল ইকবাল। পরদিন বুধবার রাতে নিখোঁজ শিক্ষার্থীর পিতা আব্দুর রউফ তারাকান্দা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন। এরপর থেকেই পুলিশ তার সন্ধ্যানে ব্যাপক তৎপড়তা চালায়। শনিবার এলাকার একটি পরিত্যাক্ত টয়লেটের থেকে পঁচা দুর্গন্ধ বের হচ্ছে দেখে এলাকাবাসী পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে সেখান থেকে লাশ উদ্ধার করে।

নিহতের স্বজনরা বলেন, ঘটনার দিন রাত ১০ টার দিকে ইকবাল রাতের খাবার খেয়ে চা পানের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হয়। ইকবাল যে দেকানে চা খেতে গিয়েছিল ওই দোকানে অপরিচিত ২ থেকে ৩ জন যুবকের সাথে ওই দিন রাতেই আড্ডা দেয়। সেখান থেকেই ইকবাল নিখোঁজ হয়। তাকে বিভিন্ন স্থানে সন্ধান করা হয়। পরে শনিবার এলাকার একটি পরিত্যক্ত টায়লেটের ট্যাংকে তার লাশের সন্ধান পায় পুলিশ। তার হত্যার রহস্য উদঘাটন কিংবা কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।