দৈনিক জনবাণী | বাংলা নিউজ পেপার | Daily Janobani | Bangla News Paper
বৃহঃস্পতিবার, ৬ অক্টোবর ২০২২

বিয়ের আগে বার বার সাইফের প্রস্তাব ফিরিয়েছেন কারিনা


বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশ: ১২ আগস্ট ২০২২, ০৭:০১ অপরাহ্ন

দীর্ঘ প্রেমের পর ২০১২ সালে ১৬ অক্টোবর বিয়ে করেন সাইফ আলি খান ও কারিনা। ২০১৬ সালে বড় ছেলে তৈমুর খানের জন্ম দেন অভিনেত্রী। ২০২১ সালে তাদের জীবনে আসে কনিষ্ঠ পুত্র জাহাঙ্গীর। কাজ, সংসার আর কাছের মানুষদের নিয়ে দিব্যি দিন কাটছে তার।

তার মধ্যেই সময় বের করে ‘লাল সিংহ চড্ডা’-র শ্যুটিং করেছেন অভিনেত্রী। সেখানেও আমির তাঁকে প্রস্তাব দিলে বিয়েতে না করে দিয়েছিলেন। ছবিতে করিনার চরিত্রের নাম রূপা।

রূপার মতো বাস্তবেও তিনি প্রেমিককে প্রত্যাখ্যান করেছিলেন কি না জিজ্ঞেস করতে, সংবাদ মাধ্যমকে জানান, ‘হ্যা’ করেছি । এক বার নয়, বেশ কয়েক বার, ঠিক মনে নেই। তবে হ্যা যে বলেছিলাম শেষে এটাই তো গুরুত্বপূর্ণ।’

কিন্তু কেন? তবে কি সাইফকে ভাল লাগত না করিনার? এর জবাবে হেসে ওঠেন করিনা। জবাব এ বলেন, ‘‘প্রেমে পড়েছিলাম ঠিকই। কিন্তু তাড়াহুড়ো করতে চাইনি। মনে হয়েছিল, বড্ড আগে ভাবছে সাইফ। তবে আমার মনে হয়, ওকে বিয়ে করব এ ব্যাপারে মনে মনে আমি নিশ্চিত ছিলাম।’’

সাইফকে ভালই লাগত। তবু শুরুতে বিয়ের প্রস্তাবে রাজি হননি করিনা। কিছুটা সময় চেয়ে নিয়েছিলেন।

সাইফ আলি খান বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ২০০৮ সালে। তবে বার বার সে প্রস্তাব ফিরিয়েছেন করিনা। প্রথমে ‘এল ও সি কার্গিল’ তার পর ‘ওমকারা’। দু’টি ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছিলেন সাইফ আর করিনা। 

তবে পর্দার রসায়ন গাঢ় হয়েছিল ‘টশন’ এর সেটে। সেই বছরই আনুষ্ঠানিক ভাবে নিজেদের সম্পর্কের কথা ঘোষণা করেছিলেন সাইফ। 

করিনার নাম হিন্দিতে ট্যাটুও করেছিলেন হাতে। তার পর ৪ বছর কেটে গিয়েছিল প্রেম। ২০১২ সালের অক্টোবরে চার হাত এক হয়েছিল যুগলের। এখন দুই ছেলে তৈমুর আর জাহাঙ্গীরের দৌরাত্ম্য সামলাতেই দিনরাত এক হয়ে যাচ্ছে করিনার। 

আরএক্স/

আরও পড়ুন